ভেড়ার যত্ন না নেওয়ায় শাস্তি

0
114

ভেড়াদের ঠিকমতো খাবার-দাবার না দেওয়ায় নিউ জিল্যান্ডেরে এক খামারিকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। পালিত ২২৬টি ভেড়াকে পুষ্টিহীন ও দুর্বল অবস্থায় পাওয়ার পর ওই কৃষককে ৯ মাসের গৃহআটকের দণ্ড দেওয়া হয়েছে। এছাড়া দেশটির পশু কল্যাণ আইনের আওতায় তাকে বিনা পারিশ্রমিকে ১৫০ ঘণ্টা সামাজিক কাজের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সোমবার বিভান স্কট তাইত নামের ওই কৃষককে এ দণ্ড দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে বিবিসি। তাকে চার বছরের জন্য পশুখামারের মালিকানা কিংবা কাজ থেকে বিরত থাকার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে।

২০১৯ সালের এপ্রিলে সাউথ আইল্যান্ডের রাসক ক্রিক এলাকায় বিভানের খামার থেকে বেশ কয়েকটি মৃত ভেড়া উদ্ধার করে কর্তৃপক্ষ। অনুসন্ধানে কর্তৃপক্ষ বিভানের খামারের অন্য ভেড়াগুলোকে অনাহারী অবস্থায় পায়। নোংরা পরিবেশে রাখায় বেশ কয়েকটি ভেড়ার গায়ে মাছির ডিম পাওয়া যায়, যার ফলে ভেড়াগুলো অসুস্থ হয়ে পড়েছিল। ওই সময় পরিদর্শক বিভানকে কিছু নির্দেশনা দিয়ে যান। কিন্তু আগস্টে খামারটিতে পুনরায় পরিদর্শনে গিয়ে পরিস্থিতির আরও অবনতি দেখতে পায় কর্তৃপক্ষ। ওই সময় খামারের ২২৬টি ভেড়াকে মেরে ফেলতে হয় এবং অন্য ভেড়াগুলো বিভিন্ন খামারে বিক্রি করে দেওয়া হয়।

পশু কল্যাণ সংস্থার ব্যবস্থাপক গ্রে হ্যারিসন বলেছেন, ‘অধিকাংশ কৃষকই তাদের পশুর জন্য সঠিক ব্যবস্থা নেন। কিন্তু নিজের পশুদের ব্যাপারে টেইটের অবহেলা আমাদের দেখা সবচেয়ে জঘন্য ঘটনাগুলোর একটি।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here