Saturday, April 20, 2024
spot_img
Homeজাতীয়আড়াই ঘণ্টায় ট্রেনের পশ্চিমাঞ্চলের দুই-তৃতীয়াংশ টিকিট বিক্রি

আড়াই ঘণ্টায় ট্রেনের পশ্চিমাঞ্চলের দুই-তৃতীয়াংশ টিকিট বিক্রি

ঈদযাত্রার ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরুর আড়াই ঘণ্টার মধ্যে পশ্চিমাঞ্চলের ১১ হাজার টিকিট বিক্রি শেষ হয়েছে। আজ রোববার সকাল ১০টা ৪৫ মিনিটে কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনের ম্যানেজার মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার বলেন, ‘আজ সকাল ৮টায় ঢাকা থেকে পশ্চিমাঞ্চলের টিকিটগুলো ওপেন হয়েছে। দুপুর ২টায় পূর্বাঞ্চলের টিকিটগুলো ওপেন হবে। পশ্চিমাঞ্চলের ট্রেনগুলোতে প্রায় ১৬ হাজার আসন ছিল। সর্বশেষ সাড়ে ১০টায় আমরা যে তথ্য পেয়েছি, তাতে ১১ হাজার টিকিট বিক্রি হয়েছে। এই ১১ হাজার টিকিট নেওয়ার জন্য সকাল সাড়ে ৮টায় প্রায় ১৫ লাখ সাবস্ক্রাইবার আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করেছে।’

তিনি বলেন, আজকে ৩ এপ্রিলের টিকিট দেওয়া হয়েছে। এ বছর ঢাকা থেকে ছেড়ে যাওয়া আন্তনগর ৪২ জোড়া ট্রেনের টিকিট দুই পর্যায়ে দেওয়া হচ্ছে। ঈদ উপলক্ষে এই অগ্রিম টিকিট সম্পূর্ণ অনলাইনে বিক্রি হবে।

এবার মোবাইল ফোনে ওটিপি ভেরিফিকেশনের মাধ্যমে টিকিট দেওয়া হচ্ছে। ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন করতে সব ব্যবস্থা রাখা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

গতবার রেল পাঁচ দিনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি করেছিল। এবার তা বাড়িয়ে সাত দিন করা হয়েছে। গতবার ঈদযাত্রার প্রথম দিনের টিকিট এক ঘণ্টার মধ্যে শেষ হলেও এবার বেলা ১১টার সময়ও রাজশাহী, বেনাপোল, দিনাজপুর রুটে ট্রেনের টিকিট অনলাইনে পাওয়া গেছে।

রেলওয়ে বলছে, এবার ঈদে ঢাকা থেকে বহির্গামী আন্তনগর ট্রেনে দৈনিক মোট আসনসংখ্যা হবে ৩৩ হাজার ৫০০। ঈদ উপলক্ষে ৩ এপ্রিল থেকে সব আন্তনগর ট্রেনের সাপ্তাহিক ডে অফ প্রত্যাহার করা হবে। ঈদ উপলক্ষে ২৪৮টি লোকোমোটিভ যাত্রীবাহী ট্রেন ব্যবহারের পরিকল্পনা করা হয়েছে।

বাংলাদেশ রেলওয়ে জানিয়েছে, ৩ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাচ্ছে আজ রোববার ২৪ মার্চ থেকে, ৪ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাবে ২৫ মার্চ, ৫ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাবে ২৬ মার্চ, ৬ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাবে ২৭ মার্চ। এ ছাড়া ৭ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাবে ২৮ মার্চ, ৮ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাবে ২৯ মার্চ, ৯ এপ্রিলের ভ্রমণের টিকিট পাওয়া যাবে ৩০ মার্চ। এ ছাড়া যাত্রীসাধারণের অনুরোধে ২৫ শতাংশ টিকিট যাত্রা শুরুর আগে প্রারম্ভিক স্টেশন থেকে পাওয়া যাবে। এর মধ্যে পূর্বাঞ্চলের টিকিট সকাল ৮টা থেকে এবং পশ্চিমাঞ্চলের টিকিট পাওয়া যাবে দুপুর ২টা থেকে। ঈদের চাঁদ দেখার ওপর নির্ভর করে ১০, ১১ ও ১২ এপ্রিলের টিকিট বিক্রি হবে।

অগ্রিম ফিরতি টিকিট বিক্রি শুরু হবে আগামী ৩ এপ্রিল থেকে। ৯ এপ্রিল পর্যন্ত অগ্রিম ফিরতি টিকিট বিক্রি হবে। ৩ এপ্রিল পাওয়া যাবে ১৩ এপ্রিলের টিকিট। এভাবে পর্যায়ক্রমে ১৯ এপ্রিল পর্যন্ত টিকিট পাওয়া যাবে। সাধারণত যাত্রার ১০ দিন আগে অগ্রিম টিকিট শুরু করে রেল।

গতকাল শনিবার রেলমন্ত্রী মো. জিল্লুল হাকিম বলেন, ‘টিকিট বিক্রি শুরুর পর ১০ থেকে ১৫ মিনিটের মধ্যেই শেষ হয়ে যায়। সার্ভার ডাউনের কারণে সাইটে প্রবেশ করা যায় না। এগুলো সব সত্যি। এই টিকিট কালোবাজারির সঙ্গে একটি সিন্ডিকেট জড়িত, যাদের সঙ্গে সহজের লোক এবং আমাদের রেলের লোকও জড়িত। ইতিমধ্যে আমরা দুটি সিন্ডিকেটকে ধরে আইনের আওতায় এনেছি। ঠিকমতো টিকেটিং ব্যবস্থা চালু রাখার জন্য সহজকে কঠোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’

RELATED ARTICLES

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments